ঢাকারবিবার , ২৬ মার্চ ২০২৩
  1. অপরাধ
  2. অর্থনৈতিক
  3. আইন আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. ইসলাম
  6. খুলনা
  7. খেলাধুলা
  8. গণমাধ্যম
  9. চট্টগ্রাম
  10. জাতীয়
  11. জেলা/উপজেলা
  12. জোকস
  13. ঢাকা
  14. তথ্য প্রযুক্তি
  15. ধর্ম
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে “উপজেলা প্রেসক্লাব উখিয়ায় দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

একুশে বার্তা ডেস্ক
মার্চ ২৬, ২০২৩ ১১:৫৮ অপরাহ্ণ
Link Copied!

শাকুর মাহমুদ চৌধুরী, উখিয়া থেকেঃ বাঙ্গালি জাতির অবিস্মরণীয় ও গৌরবময় দিন আজ। জাতীয় জীবনের সবচেয়ে আলোচিত সবচেয়ে গৌরবের স্মৃতি নিয়ে আবারও ফিরে এসেছে চির অম্লান আনন্দ বেদনায় মিশ্রিত দিবসটি। যেই দিবসটিতে বিশ্বের মানচিত্রে বাংলাদেশ নামক একটি স্বাধীন ভূখণ্ডের জন্ম দেয়।

যারা অক্লান্ত পরিশ্রমে, বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে নতুন পরিচয় মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর সুযোগ করে দিয়েছে সেই মহানায়ক হচ্ছেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

যার ৭ মার্চের ভাষণ- এবারের সংগ্রাম মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম।ঘরে ঘরে দুর্গ গড়ে তুলুন তোমাদের যা কিছু আছে তাই নিয়ে প্রস্তুত থাক। যার স্বাধীনতার অমর কাব্যের এই পংক্তিটি দৃঢ়তায় বলীয়ান করে তোলেছিল সেদিন স্বাধীনতা প্রেমী বাঙ্গালীদের।

তাইতো কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের বলেছিলেন

“তুমি যে সুরের আগুন ছড়িয়ে দিলে মোর প্রাণে সেই আগুন ছড়িয়ে গেলো সবখানে, সবখানে”।

দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পরে আজকের এই দিনে জন্ম নেয় একটি নতুন দেশ। সার্ভভৌম বাংলাদেশ। ঝড়ের ভেতরে বিকশিত অটল বৃক্ষের জীবন্ত প্রতীক স্বাধীনতা নামের অগ্নিস্ফুলিঙ্গ। আজও প্রচন্ড ঝাঁকি দেয় রক্তে, শানিত করে চেতনা।

বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে ১৯৪৮ সালের মাতৃভাষার অধিকারের দাবিতে গড়ে ওঠা আন্দোলনের পথ বেয়ে ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলন, ১৯৫৪ সালের যুক্তফ্রন্ট নির্বাচনে জয়লাভ, ১৯৫৬ সালের সংবিধান প্রণয়ন আন্দোলন, ১৯৫৮ সালের মার্শাল ল বিরোধী আন্দোলন, ১৯৬২ সালের শিক্ষা কমিশন বিরোধী আন্দোলন, ১৯৬৬ সালের ৬ দফা আন্দোলন, ১৯৬৮ সালের আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা, ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুথান, ১৯৭০ সালে ঐতিহাসিক সাধারণ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নিরস্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন, ১৯৭১ সালের ৭ মার্চ বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণ ও পাকিস্তানি শাসকগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে সর্বাত্মক অসহযোগ আন্দোলন প্রভৃতি ঘটনা প্রবাহের মধ্য দিয়ে স্বাধীনতা অর্জনের চুড়ান্ত লক্ষ্যে ঐকবদ্ধ হয়ে ওঠে বাঙালি জাতি।

১৭ এপ্রিল মুজিবনগর সরকার গঠন এবং রক্তক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে ৩০ লক্ষ শহীদ ও দুই লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রমের বিনিময়ে অর্জিত হয় স্বাধীনতা। ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর পাক সেনাদের আত্মসমর্পনের মধ্য দিয়ে চুড়ান্ত বিজয় অর্জিত হয়। বাঙালি জাতি পরাধীনতার শিকল ভেঙে প্রথম স্বাধীনতার স্বাধ গ্রহণ করে। বাঙালি আঘাত খেয়েছে বারবার কিন্তু কখনো আহত পাখির মতো আর্তনাদ করেনি। ভেঙে পড়েনি ব্যর্থতার ক্রন্দনে। সমস্ত আঘাত বুকে পেতে নিয়েছে সর্বাঙ্গে রুধির মেখে। অবিচারের বিরুদ্ধে মাথা তুলে দাঁড়িয়েছে।
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দীর্ঘ ২৪ বছরের লড়াই-সংগ্রাম এবং তার নেতৃত্বে, এক সাগর রক্তের বিনিময়ে ছিনিয়ে আনে বিজয়, লাল-সবুজের পতাকা সংবলিত স্বাধীন-সার্ভভৌম বাংলাদেশ। বিশ্বের মানচিত্রে স্থান করে নেয় একটি স্বাধীন দেশ হিসেবে।
৫৫ হাজার বর্গমাইলের এই সবুজ দেশে, ৫২ বছর আগে আজকের এই দিনে উদয় হয়েছিল এক নতুন সূর্যের। সেদিনের সেই সূর্যের আলোয় ছিল নতুন নিদের স্বপ্ন। যে স্বপ্নে অকাতরে প্রাণ দিয়েছিল এ দেশের ৩০ লক্ষ্য মানুষকে।

এত বছর পূর্ণ হলেও সেই স্বপ্ন এখনো পুরোপুরি বাস্তবে রূপ পায়নি। শেষ হয়নি মুক্তিকামী মানুষের সংগ্রাম। স্বাধীনতার ৫২ বছর পরও একাত্তরের পরাজিত শত্রুরা মাঝে মধ্যেই ফানা তোলার চেষ্টা করছে। স্বাধীনতার পর বাংলাদেশকে “তলা বিহীন ঝুড়ির” দেশ বলে আখ্যা দেয়া হয়েছে।

স্বাধীনতার এত বছরে বঙ্গবন্ধু আজ শুধু সর্বলকালের শ্রেষ্ঠ বাঙালীই নন, বিশ্বের শোষিত বঞ্চিত নিপীড়িত মানুষের মুক্তির অনুপ্রেরণা হিসেবে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত। তাঁরই নির্দেশিত পথে তাঁরই জ্যৈষ্ঠ কন্যার হাত ধরে সারা বিশ্বে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের বিস্ময়। দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম প্রাণ শক্তি। সারা বিশ্বের উন্নয়নের রোল মডেল।

আর তাই যে ৩০ লক্ষ শহীদের রক্তের বিনিময়ে আজ আমরা এই বাংলাদেশ পেয়েছি আজকের এই দিনে তাদের স্মরণে উপজেলা প্রেসক্লাব উখিয়ার সকল সদস্যদের শহীদ মিনারে ফুল দেয়া ও কোরআন তেলাওয়াত, দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছিল।
উক্ত আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রেসক্লাব উখিয়ার সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, সাধারণ সম্পাদক শাকুর মাহমুদ চৌধুরী, সহ-সভাপতি আবদুল হাকিম, সাংগঠনিক সম্পাদক এম মোস্তফা কামাল আজিজি, দপ্তর সম্পাদক মুফিজুল ইসলাম, অর্থ সম্পাদক হেলাল উদ্দিন, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক তারেকুর রহমান, নির্বাহী সদস্য (১) জয়নাল উদ্দিন, সাংবাদিক জাহাঙ্গীর, সাংবাদিক সালাহ উদ্দিন, সদস্য নুরুল ইসলাম প্রমুখ।

প্রিয় পাঠক, আপনিও একুশে বার্তা অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন ekusheybartaonline@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।

x